এইমাত্র পাওয়া

  • কাপ জিতেই ছাড়ব, জন্মদিনে শপথ মেসির
  • প্রাথমিকে ১২ হাজার শিক্ষক নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি জুলাইয়ে, থাকছে ৬০% নারী কোটা
  • ঝালকাঠিতে সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন ধ্রুবতারা’র দোয়া ও ইফতার অনুষ্ঠান
  • ঝিনাইদহে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে সেমিনার
  • দেশের কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারি অথবা বজ্রবৃষ্টি হতে পারে
  • ফাঁটা পায়ের যত্নে কিছু পরামর্শ !!
  • ডায়াবেটিস রোগীরা কি রোজা রাখতে পারবে?
  • ওজন কমাবে কালো জিরা
  • হলুদ দাঁতের সমস্যা সমাধান করুন নিমিষেই
  • কিশিমিশের পানি খেলে যে উপকার পাবেন
Updated

খবর লাইভ

জিরা পানি খেলে যে ১৫টি উপকার পাবেন

30 December 2016 11:12:42 AM 22278250 ভোট:5/5 1 Comments
Star ActiveStar ActiveStar ActiveStar ActiveStar Active
জিরা পানি খেলে যে ১৫টি উপকার পাবেন

১) ওজন কমাতেঃ
এর একটি উপকারিতা হচ্ছে ওজন কমাতে সাহায্য করে। দিনে দুই বার জিরা পানি পানে পেটের ক্ষুধা কমিয়ে দেয় যার ফলে খাওয়ার ইচ্ছেটা কমে যায়।

২) রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিতেঃ
জিরা আয়রনের চমৎকার একটি উৎস। যা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার কাজ পরিচালনা করার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এতে আয়রনের পাশাপাশি বেশ ভালো পরিমান ভিটামিন এ ও সি থাকে যা থেকে অ্যান্টি অক্সিডেণ্টের সুবিধা পাওয়া যায়। magical tonic of cumin water

৩) রক্তশূন্যতার চিকিৎসায়ঃ
জিরাতে থাকা আয়রন রক্তস্রোতে অক্সিজেন বহনকারী হিমোগ্লোবিনের পরিমাণ বৃদ্ধি করে। এছাড়া জিরা পানি আয়রনের অভাবজনিত রক্তশূন্যতার জন্য বেশ উপকারী।

৪) অ্যাসিডিটি কমাতেঃ
এটা অ্যাসিডিটির সমস্যার জন্য ভালো। যেকোনো ভারী খাবার খাওয়ার পর ধীরে ধীরে জিরাপানি খেয়ে নিলে অ্যাসিডিটির আক্রমণ থেকে রক্ষা পাওয়া যায়।

৫) কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করতেঃ
জিরাপানি পানের আর একটি স্বাস্থ্য উপকারিতা হচ্ছে কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্তি। তাই যাদের কোষ্ঠকাঠিন্য আছে তারা দিনে দুইবার এই পানীয়টি পান করতে পারেন। 

৬) গ্যাসের সমস্যা দূরীকরণেঃ
পেটের গ্যাস কমাতে জিরাপানি সাহায্য করে। যদি গ্যাসের কারণে পেট ফুলে থাকে তাহলে ধীরে ধীরে জিরাপানি খেতে পারেন যতক্ষণ না পেটের গ্যাস দূর হয়।

৭) বমি বমিভাব দূর করতেঃ
জিরাপানি বমি বমি ভাব দূর করতে সাহায্য করে তাই গর্ভবতী নারীরা এটি পান করতে পারেন ‘মর্নিং সিকনেস’ থেকে মুক্তি পেতে।

৮) পানিশূন্যতা দূরীকরণেঃ
এর অনেক স্বাস্থ্য উপকারিতার মাঝে একটি হচ্ছে গরম কালে এটি দেহকে আর্দ্র রাখতে সাহায্য করে। এটিতে স্বাস্থ্যসম্মত মশলা জিরা থাকার কারণে এটি প্রাকৃতিকভাবে দেহের তাপমাত্রা কমায়। 

৯) ভালো ঘুমের জন্যঃ
যাদের মাঝে ইন্সমোনিয়া বা ঘুমের সমস্যা আছে তাদের জন্য জিরাপানি খুব উপকারী। নিয়মিত খেলে ভালো ঘুম হয়।

১০) স্মৃতিশক্তি উন্নত করেঃ
জিরা মস্তিস্কের শক্তিকে উন্নত করে। তাই অল্প বয়স থেকেই যদি জিরাপানি খাওয়া যায় তাহলে তা উল্লেখযোগ্যভাবে স্মৃতিশক্তি ও বুদ্ধিমত্তাকে তীক্ষ্ণ করে।

১১) শরীরের দূষণ দূরীকরণেঃ
জিরাপানি যকৃতের ও পাকস্থলীর জন্য খুবই উপকারী। জিরার মাঝে থাকা এন্টিঅক্সিডেন্ট দেহের এবং ভেতরের অঙ্গের বিষাক্ততা দূর করে।

১২) গর্ভবতী ও স্তন্যদাত্রী মায়েদের বাড়তি পুষ্টির জন্যঃ
জিরাতে থাকা আয়রন গর্ভবতী ও স্তন্যদাত্রী মায়েদের জন্য খুবই ভালো। এটা গর্ভস্থ ভ্রুণের, বাচ্চার এবং মায়ের আয়রনের চাহিদা মেটাতে সাহায্য করে। 

১৩) তলপেটের ব্যাথা কমাতেঃ
মাসের বিশেষ দিনগুলোতে তলপেটে ব্যাথা অনুভব করেন অনেক নারীই, তাদের এই ব্যাথা কমাতে অল্প অল্প করে সারাদিন জিরাপানি খেতে পারেন।

১৪) ত্বকের যত্নেঃ
যখন দেহ আভ্যন্তরীণভাবে স্বাস্থ্যবান থাকে তা ত্বকের মাঝে প্রতিফলিত হয়। এই জিরা পানি দেহকে আভ্যন্তরীণ ভাবে শক্তিশালী ও স্বাস্থ্যবান করে তাই করে এর ফলে ত্বক এর গুরুত্বপূর্ণ প্রভাব পরে। জিরা পানি ব্রণের জন্য প্রাকৃতিক ঔষধের কাজ করে। জিরাপানি ত্বকের জ্বালাপোড়া ভাব দূর করতে সাহায্য করে। 

১৫) অ্যান্টি অক্সিডেন্ট সরবরাহ করেঃ
নিয়মিত জিরা পানি পানে দেহ পর্যাপ্ত পরিমানে ভিটামিন এ,সি ও ই পায় যেগুলো এন্টিঅক্সিডেন্ট ও এন্টিএজিং গুনাগুনের জন্য পরিচিত। এটা পান করার ফলে ত্বক পরিপূর্ণ হয় এবং অকাল বুড়ীয়ে যাওয়া প্রতিরোধ করে।

কীভাবে বানাবেন জিরাপানি?

উপকরণ:
১. ২ চা চামচ জিরা গুঁড়া
২. ১০-১২ টি পুদিনা পাতা
৩. ১ চা চামচ আমচুর/তেঁতুল চাটনি
৪. ১-২ চা চামচ গোল মরিচ গুঁড়া
৫. ১ চা চামচ লেবুর রস
৬. ১-২ চা চামচ চিনি
৭. ৩ কাপ ঠাণ্ডা পানি
৮. লবন স্বাদমত

প্রস্তুত প্রণালীঃ
ঠাণ্ডা পানি ছাড়া বাকি সব উপকরণ ব্লেন্ডার এ মিক্স করে নিন। এরপর পেস্টটি ঠাণ্ডা পানির সাথে মিক্স করে বরফ দিয়ে পরিবেশন করুন। ব্যাস, খুব সহজেই ঘরে বসে তৈরি হয়ে গেল স্বাস্থ্যকর জিরা পানি। ma

Loading...
advertisement
সর্বশেষ সংবাদ
এ বিভাগের সর্বশেষ