এইমাত্র পাওয়া

  • কাপ জিতেই ছাড়ব, জন্মদিনে শপথ মেসির
  • প্রাথমিকে ১২ হাজার শিক্ষক নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি জুলাইয়ে, থাকছে ৬০% নারী কোটা
  • ঝালকাঠিতে সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন ধ্রুবতারা’র দোয়া ও ইফতার অনুষ্ঠান
  • ঝিনাইদহে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে সেমিনার
  • দেশের কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারি অথবা বজ্রবৃষ্টি হতে পারে
  • ফাঁটা পায়ের যত্নে কিছু পরামর্শ !!
  • ডায়াবেটিস রোগীরা কি রোজা রাখতে পারবে?
  • ওজন কমাবে কালো জিরা
  • হলুদ দাঁতের সমস্যা সমাধান করুন নিমিষেই
  • কিশিমিশের পানি খেলে যে উপকার পাবেন
Updated

খবর লাইভ

ঈদ রাঙাবো মেহেদির রঙে

16 June 2017 06:06:14 PM 28437539 ভোট:5/5 1 Comments
Star ActiveStar ActiveStar ActiveStar ActiveStar Active
ঈদ রাঙাবো মেহেদির রঙে

ঈদ এলেই পড়ে যায় মেহেদি দিয়ে হাত রাঙানোর ধুম। একাল সেকাল সব কালেই। এই ঈদে কেমন নকশায় হাত রাঙাবেন, তা নিয়ে চিন্তা এখন থেকেই তাই না? আগে দেখা যেত হাতের তালুতে একটা বড় বৃত্ত আর মুড়িয়ে দেওয়া আঙুল- এই ছিল মেহেদি রাঙানোর পদ্ধতি। এখন তা রূপ নিয়েছে রীতিমতো শিল্পে। মেহেদি বাটার ঝামেলাটা মিটিয়ে দিয়েছে বাজারে কিনতে পাওয়া টিউব মেহেদিগুলো। এ টিউব মেহেদিতেও কত বৈচিত্র্য। লাল মেহেদি, কালো মেহেদি, তার সাথে নতুন মাত্রা যোগ হয়েছে বাজারে পাওয়া হরেক রঙের রঙিন গ্লিটার।

হাত রাঙাতে ফুল, লতা-পাতার কত রকম আল্পনা শোভা পাচ্ছে হাতের তালুর মধ্যে। কখনো বা ভাগ হয়ে আধাআধি তালুর নিচে। আঙুলের ডগায় লতানো পাতার মাথায় ছোট তারা ফুল আর বুটি তো আছেই। হাতের তালু ছাড়িয়ে মেহেদিটা কখনো বা চলে যায় একেবারে কনুই অবধি। কখনো বা থেমে যায় মাঝপথে। কখনো বা হাতের তালু ছাপিয়ে তালুর বিপরীতে হাতের ওপরে। কালো মেহেদির ভেতর লাল মেহেদি দিয়ে তার ওপর পোশাকের সাথে রং মিলিয়ে লাগিয়ে নিতে পারেন গ্লিটার মেহেদির বুটি। শুধু তাই নয়, আজকাল পায়ের বাহারি সাজেরও বেশ প্রচলন দেখা যাচ্ছে। রমনীরা নিজেদের সাজানোর সাথে পায়ের সাজ টাও বাদ দিচ্ছেন না।

আপনি যদি বাটা মেহেদি হাতে দিলে খুব মিহি করে বেটে নিতে হবে। তারপর ছেঁকে নিতে হবে ছাঁকুনিতে। বাজারে খালি টিউব পাওয়া যায়। তা কিনে এনে তাতে ভরে নিতে পারেন সহজেই। অথবা বাটার পেপার ত্রিকোনা করে তাতে মেহেদি ভরে কোনাকুনি করে মুড়িয়ে আটকে দিন টেপ দিয়ে। এবার সুচ দিয়ে করে নিন ছোট একটা ছিদ্র। এখন বাজারে নানা ব্রান্ডের টিউব মেহেদি পাওয়া যায়। সাথে থাকে আলপনা আঁকা পেপার। যা দেখে পছন্দমত নিজেই সাজাতে পারেন হাত। ডিজাইন পেপারের সাথে একটু ভিন্নতা সংযোজন করে নতুন কোন নকশা আনতে পারেন। যা আপনাকে অন্য সবার থেকে আলাদা করবে।

মেহেদিতে হাত রাঙানোর আগে ঢিলেঢালা এমন পোশাক পরুন, যা মেহেদি রাঙা হাতের কোনো সমস্যা করবে না। একটু গাঢ় রঙের পোশাক পরুন, যাতে কাপড়ে মেহেদির দাগ না হয়। এবার হাত সাবান দিয়ে ধুয়ে খুব ভালোভাবে মুছে নিন। কোনো ক্রিম বা ময়েশ্চারাইজার লাগাবেন না হাতে। পছন্দমতো মেহেদি লাগানোর পর কমপক্ষে এক ঘণ্টা হাতে মেহেদি রাখবেন। এ সময় হাতে পানি লাগানো যাবে না। শুকিয়ে গেলে মেহেদিটা হালকা করে ঝরিয়ে নিন। তারপর লেবুর রস বা চিনির শিরা তুলোয় নিয়ে হাতে লাগান। ততক্ষণে কিন্তু চমৎকার লাল হয়ে উঠেছে আপনার মেহেদির নকশা। মেহেদিরাঙা হাতের সাথে লাল ও গোলাপি রঙের নেইলপলিশটা খুব ভালো লাগে দেখতে। নখে ফ্রেঞ্চ ম্যানিকিওর করালেও ভালো লাগবে।

Loading...
advertisement
সর্বশেষ সংবাদ
এ বিভাগের সর্বশেষ