এইমাত্র পাওয়া

  • কাপ জিতেই ছাড়ব, জন্মদিনে শপথ মেসির
  • প্রাথমিকে ১২ হাজার শিক্ষক নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি জুলাইয়ে, থাকছে ৬০% নারী কোটা
  • ঝালকাঠিতে সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন ধ্রুবতারা’র দোয়া ও ইফতার অনুষ্ঠান
  • ঝিনাইদহে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে সেমিনার
  • দেশের কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারি অথবা বজ্রবৃষ্টি হতে পারে
  • ফাঁটা পায়ের যত্নে কিছু পরামর্শ !!
  • ডায়াবেটিস রোগীরা কি রোজা রাখতে পারবে?
  • ওজন কমাবে কালো জিরা
  • হলুদ দাঁতের সমস্যা সমাধান করুন নিমিষেই
  • কিশিমিশের পানি খেলে যে উপকার পাবেন
Updated

খবর লাইভ

৩২লাখ ভারতীয় ডেবিট কার্ড এখন চিনা হ্যাকারদের হাতে!

21 October 2016 09:10:33 AM 7251148 ভোট:5/5 1 Comments
Star ActiveStar ActiveStar ActiveStar ActiveStar Active
৩২লাখ ভারতীয় ডেবিট কার্ড এখন চিনা হ্যাকারদের হাতে!

নিরাপত্তায় সিঁধ কেটে দেশের ব্যাঙ্কিং ক্ষেত্রকে বড়সড় ধাক্কা দিল চিনা হ্যাকাররা। বেশ কয়েকটি ব্যাঙ্ক ইতিমধ্যে ঘোষণা করেছে তাদের গ্রাহকদের এটিএম কার্ড (ডেবিট কার্ড)-এর তথ্য চলে গিয়েছে চিনা হ্যাকারদের হাতে। সেই তথ্য ব্যবহার করে চিনে বসেই টাকা তুলে নিচ্ছে তারা। ‌যে সব ব্যাঙ্কের গ্রাহকদের তথ্য চুরি হয়েছে তার মধ্যে সব থেকে ওপরে রয়েছে স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া। আর এই তথ্য হাতে আসতেই ৩২ লক্ষ কার্ড ব্লক করে দিয়েছে ব্যাঙ্কগুলি। তাদের বিনামূল্যে দেওয়া হবে নতুন কার্ড।

বেশ কয়েকদিন ধরেই গ্রাহকরা ব্যাঙ্কের কাছে ভুতুড়ে লেনদেনের অভি‌যোগ করছিলেন। সব লেনদেনগুলিই হচ্ছিল চিন থেকে। তদন্তে নেমে ব্যাঙ্কগুলি জানতে পারে, চিনা হ্যাকাররা এটিএম-এ সুকৌশলে ঢুকিয়ে দিয়েছে এমন এক সফটওয়্যার ‌যা গ্রাহকদের ডেবিট কার্ডের তথ্য তাদের কাছে পাচার করে দিচ্ছে। এক ফলে ‌স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার গ্রাহকরা সব থেকে বেশি প্রভাবিত হয়েছেন। এছাড়া HDFC Bank, ICICI Bank, Yes Bank ও Axis Bank-এর গ্রাহকরাও রয়েছেন এই তালিকায়। সব মিলিয়ে সংখ্যাটা ৩২ লক্ষ। এর মধ্যে ভিসা ও মাস্টারকার্ড রয়েছে ২৬ লক্ষ। ৬ লক্ষ রয়েছে রুপে কার্ড।

SBI-এর তরফে জানানো হয়েছে, আপাতত ৬ লক্ষ নতুন কার্ড গ্রাহকদের দেবে তারা। সঙ্গে গ্রাহকদের তাঁদের এটিএম পিন পরিবর্তনের পরামর্শ দিয়েছে ব্যাঙ্কটি। HDFC ব্যাঙ্কের তরফে জানানো হয়েছে, তাঁদের ব্যবস্থায় নিরাপত্তার কোনও গলদ নেই। ‌যে সমস্ত গ্রাহক অন্য ব্যাঙ্কের ATM ব্যবহার করে PIN পরিবর্তন করেছেন শুধু তাঁরাই এই প্রতারণার জালে জড়িয়েছেন। তাই গ্রাহকদের শুধু HDFC ATM ব্যবহারের অনুরোধ জানিয়েছে তারা।

সূত্রের খবর, ছ’‍সপ্তাহ আগে ATM-এ এই ম্যালওয়্যার ঢুলকলেও এতদিন পাত্তাই দেয়নি ব্যাঙ্কগুলি। অর্থনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, এই ঘটনায় কেন্দ্রীয় সরকারের ক্যাশলেস ট্রান্জাক্সনকে জনপ্রিয় করে তোলার উদ্যোগ বড়সড় ধাক্কা খেল।

Loading...
advertisement
সর্বশেষ সংবাদ
এ বিভাগের সর্বশেষ